বিশ্ব নেতারা পর্যাপ্ত সময় পেয়েও করোনা ঠেকাতে ব্যর্থ: বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

A+ A- No icon

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) বলছে, করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঘটার সঙ্গে সঙ্গে ‘সময় নষ্ট না করে’ প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছে তারা। করোনার প্রাদুর্ভাব মোকাবিলায় সংস্থাটির ভূমিকা নিয়ে যখন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রশ্ন তুলছেন তখন তারা এ কথা জানালো। ডব্লিউএইচও’র প্রধান ড. টেডরোস আধানম গেব্রিয়েসাস বলেন, আমরা যখন ৩০ জানুয়ারি এই ভাইরাসকে আন্তর্জাতিক স্বাস্থ্যগত জরুরি অবস্থা হিসেবে ঘোষণা করি তখন ‘পুরো বিশ্ব প্রতিক্রিয়া দেখানোর মতো যথেষ্ট সময় পেয়েছে।‘ ওই সময় চীনের বাইরে মাত্র ৮২ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছিল এবং কারও মৃত্যু হয়নি। কিন্তু এখন বিশ্বের ৩২ লাখের বেশি মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছে। আর মৃত্যু হয়েছে অন্তত দুই লাখ ৩৪ হাজার মানুষের।


মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প অভিযোগ করেছেন যে, ডব্লিউএইচ নিজেদের দায়িত্ব ‘ঠিকমতো’ পালন করেনি এবং তারা চীনের প্রতি পক্ষপাতমূলক। এমন প্রেক্ষিতে সংস্থাটিকে অর্থায়ন বন্ধেরও হুমকি দেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। এক সংবাদ সম্মেলনে বিশ্বজুড়ে করোনার ব্যাপক সংক্রমণের জন্য পরোক্ষভাবে দায় চাপিয়েছেন ডব্লিউএইচও’র প্রধান। তিনি জোরারোপ করে বলেন, ডব্লিউএইচও ওই ঘোষণা দেয়ার আগের সময়টুকু ভালোভাবে কাজে লাগিয়েছে এবং ভাইরাসটি সম্পর্কে জানতে চীনে এর উৎপত্তিস্থল পরিদর্শন করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার কর্মকর্তারা।

Comment As:

Comment (0)