ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে আসা নতুন বন্দীরা যাচ্ছে কোয়ারেন্টিনে

A+ A- No icon

কেরানীগঞ্জের ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে আসা নতুন বন্দীদের কোয়ারেন্টিনে রাখা হচ্ছে। প্রায় ২৫০ জন বন্দীকে কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে। বন্দীদের মধ্যে কারা কর্তৃপক্ষ বিনা মূল্যে মাস্ক বিতরণ করছে। আদালত থেকে কোনো আসামি এলে হ্যান্ডওয়াশ দিয়ে হাত ধোয়ানো হচ্ছে এবং থার্মাল স্ক্যানার দিয়ে শরীরের তাপমাত্রা পরীক্ষা করে কারাগারের ভেতরে প্রবেশ করানো হচ্ছে।


ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারের চিকিৎসক মাহমুদুল হাসান বলেন, ১১ মার্চ থেকে কারাগারে আসা নতুন বন্দীদের বিশেষ কক্ষে ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিনে রাখা হচ্ছে। নতুন বন্দীদের মধ্যে যাদের সর্দি, কাশি রয়েছে তাঁদের সম্পূর্ণভাবে আলাদা রেখে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তিনি আরও বলেন, কারাগারে কোনো বন্দী আইসোলেশন নেই। তবে এক বন্দী গাজীপুর কারাগার থেকে এসেছিল। তাঁর অবস্থা সন্দেহজনক হওয়ায় কুর্মিটোলার আইসোলেশন কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে।


ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারের জ্যেষ্ঠ জেল সুপার ইকবাল কবির চৌধুরী বলেন, কারা অধিদপ্তরের নির্দেশনা অনুযায়ী কারাগারে আসা নতুন বন্দীদের হাত ধোয়ানোর ব্যবস্থা করা, কারাগার পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখা হচ্ছে। এ ছাড়া কারাবন্দীদের তৈরি করা মাস্ক কারাগারে বন্দীদের মাঝে বিনা মূল্যে বিতরণ করা হচ্ছে। কিছু মাস্ক সাশ্রয়ী মূল্যে কারাগারের বাইরে কারা ক্যানটিনে বিক্রি করা হচ্ছে। নতুন বন্দীদের আলাদা করে নির্দিষ্ট স্থানে রাখা হচ্ছে। দুজন চিকিৎসক ও দুজন নার্স সার্বক্ষণিক তৎপর রয়েছেন। বন্দীদের কক্ষে সকাল ও সন্ধ্যায় দুইবার জীবাণুনাশক ছিটানো হচ্ছে।

Comment As:

Comment (0)