মনোজ ছাড়লেন অভিনয় ও শিক্ষকতা

A+ A- No icon

অল্প সময়ের ক্যারিয়ারে ছোট পর্দার মেধাবী অভিনেতা মনোজ কুমার পরিচয় দিয়েছেন জাত শিল্পীর। অভিনয় করেছেন বেশ কিছু জনপ্রিয় নাটক ও টেলিফিল্মে। পাশাপাশি করছেন ময়মনসিংহের কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ফিল্ম অ্যান্ড মিডিয়া স্টাডিজ বিভাগে শিক্ষকতা। গতকাল রাতে হঠাৎ করেই ফেসবুকে এক স্ট্যাটাসে তিনি জানান অভিনয় ও শিক্ষকতা দুটোতেই আর নেই তিনি। রাতে দেওয়া ওই স্ট্যাটাসে মনোজ কুমার লেখেন, ‘আমি চাকরি ছেড়ে দিয়েছি এবং আমি আর কোনোদিন শুটিং করব না সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আজকে রাতে সারা জীবনের জন্য নওগাঁ জেলার নিয়ামতপুর থানার রাধানগরে আমার বাবা-মায়ের কাছে ফিরে যাচ্ছি। আর কোনোদিন ফিরব না, আপাতত সিদ্ধান্ত নিয়েছি। কারণ বাবা-মায়ের আমাকে দরকার। আমি আর কিচ্ছু চাই না।’ এ বিষয়ে তার সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে মনোজ জানান, ফেসবুকে এ বিষয়ে তিনি যা লিখেছেন এর বেশি আর কিছু জানাতে চান না। সময় হলেই এ বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে।


মনোজ সম্প্রতি শেষ করেছেন মোস্তফা সরয়ার ফারুকী পরিচালিত ‘স্যাটারডে আফটারনুন’ ছবির কাজ। এর পাশাপাশি অভিনয় করেছেন ‘ইতি তোমারই ঢাকা’তে। চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন নির্মাতা নূরুল আলম আতিকের নতুন ছবি ‘মানুষের বাগান’-এ।


২০০৮ সালে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পড়ালেখা শেষ করে ঢাকায় আসেন মনোজ। বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার সময় থিসিসের একটা সূত্র ধরে নির্মাতা অমিতাভ রেজার সঙ্গে পরিচয় তার। সে সূত্র ধরেই তার সহকারী হিসেবে কাজ করার সুযোগ পান। এটাই আসলে তার শোবিজে ক্যারিয়ার গড়ার ভিতটা গড়ে দেয়। এরপর থেকেই ধীরে ধীরে তার কর্মপরিধি বাড়তে থাকে। বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াকালীন ২০০৬ সালের দিকে রাজিবুল হোসেনের ‘বালুঘড়ি’ নামে একটি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছিলেন মনোজ।

Comment As:

Comment (0)