দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ের পরও হতাশ সরফরাজ

A+ A- No icon

ভাগ্য ফেবারে না থাকলে যা হয়। ইনিংসের শুরু থেকে অসাধারণ ব্যাটিং করে যাওয়া পাকিস্তান অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ মাঠ ছাড়েন মাথা নিচু করে। তার চাহনিই বলে দিচ্ছে, তিনি কতোটা হতাশ, কতোটা ব্যথিত। মাত্র ৩ রানের জন্য সেঞ্চুরির মিস করেন। রোববার ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পঞ্চম ওয়ানডেতে ব্যাটিংয়ে ঝড় তোলেন বাবর আজম ও সরফরাজ আহমেদ। অথচ দুজনই ফেরেন হতাশ হয়ে। ৩৫২ রানের পাহাড়সম টার্গেট তাড়া করতে নেমে মাত্র ৬ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে চরম বিপর্যয়ে পড়ে যায় পাকিস্তান।


দলের এমন কঠিন পরিস্থিতিতে হাল ধরেন বাবর আজম ও সরফরাজ আহমেদ। চতুর্থ উইকেটে গড়েন ১৪৬ রানের। দুর্ভাগ্য বাবর আজম ও সরফরাজের। দুজনই সেঞ্চুরির কাছাকাছি গিয়ে ব্যর্থ হন। দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ের পরও সেঞ্চুরির আক্ষেপ নিয়ে মাঠ ছাড়েন তারা। পাঁচ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের চতুর্থ খেলায় সেঞ্চুরি (১১৫) করা বাবর আজম রোববার ফেরেন ৮৩ বলে ৮০ রান করেন। তার ইনিংসটি ৭৮ বলে সাতটি চার ও ২টি ছক্কায় সাজানো।


বাবর আজম আউট হলেও, সেঞ্চুরির অপেক্ষায় ছিলেন সরফরাজ আহমেদ। কিন্তু বাবরের মতো সরফরাজও হতাশ হয়ে মাঠ ছাড়েন। দুজনই ফেরেন রান আউট হয়ে। তার আগে ৮০ বলে ৭টি চার ও দুটি ছক্কায় ৯৭ রান করেন পাকিস্তান অধিনায়ক সরফরাজ। রোববার হেডিংলির লিডস স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে ব্যাটিং করে ইংল্যান্ড। ২ উইকেটে ২২২ রান করা স্বাগতিক দলটি এরপর নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারায়। সময়ের ব্যবধানে উইকেট পতন হলেও ব্যাটিং ঝড় অব্যাহত রাখতে সক্ষম হয় ইংলিশরা। যে কারণে কোনো সেঞ্চুরি ছাড়াই সাড়ে তিনশ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়ে ইয়ন মর্গানের নেতৃত্বাধীন দলটি। ইংল্যান্ডের হয়ে সর্বোচ্চ ৮৪ রান করেন জো রুট, ৭৬ রান করেন অধিনায়ক ইয়ন মর্গান। পাকিস্তানের হয়ে ৮২ রানে ৪ উইকেট শিকার করেন শাহিন শাহ আফ্রিদি। ৫৩ রানে ৩ উইকেট নেন অলরাউন্ডার ইমাদ ওয়াসিম।

 

সংক্ষিপ্ত স্কোর
ইংল্যান্ড: ৫০ ওভারে ৩৫১/৯ (জো রুট ৮৪, মর্গান ৭৬, বাটলার ৩৪, ভিন্স ৩৩, জনি বেয়ারস্টো ৩২, কারান ২৯*; শাহিন শাহ আফ্রিদি ৪/৮২, ইমাদ ওয়াসিম ৩/৫৩)।
 

Comment As:

Comment (0)