বাংলাদেশের পাকিস্তান সফর নিয়ে আছে অনিশ্চয়তা

A+ A- No icon

ওয়ানডে সিরিজ শেষ, পাকিস্তানের মাটিতে শ্রীলঙ্কার এখন টি-টোয়েন্টি চ্যালেঞ্জ। শ্রীলঙ্কা যেভাবে গিয়েছে, একইভাবে জানুয়ারিতে বাংলাদেশ যাবে পাকিস্তান সফরে? উত্তরটা এখনই দিতে পারছে না বিসিবি। ২০০৯ সালের পর থেকে অন্য শক্তিশালী দলগুলোর মতো বাংলাদেশও বারবার এড়িয়ে গেছে পাকিস্তান সফর। যদিও পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের (পিসিবি) আমন্ত্রণে সাড়া দিয়ে বিসিবি বিভিন্ন সময়ে বয়সভিত্তিক কিংবা নারী দল পাঠিয়েছে। এ মাসেও নারী দলের পাকিস্তান সফর আছে। যাওয়ার কথা বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৭ দলেরও। তবে ২০০৮ সালের পর পাকিস্তানে জাতীয় দলকে পাঠায়নি বিসিবি।

 

জানুয়ারিতে যে টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি সিরিজ আছে বাংলাদেশের, সেটির আয়োজক পাকিস্তান। এই দুটি সিরিজ কোথায় আয়োজন করা হবে, সেটি এখনো চূড়ান্ত না হলেও পিসিবি চেয়ারম্যান এহসান মানি কদিন আগে পরিষ্কার জানিয়েছেন, তাঁরা আর নিরপেক্ষ ভেন্যুতে খেলতে রাজি নন। পিসিবির অনড় অবস্থানের কারণেই শ্রীলঙ্কা গিয়েছে পাকিস্তান সফরে। কিছু গুরুত্বপূর্ণ শ্রীলঙ্কান খেলোয়াড় অবশ্য নিজেদের নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছেন এই সফর থেকে।

 

পিসিবি যদি বাংলাদেশের ক্ষেত্রেও নিরপেক্ষ ভেন্যুতে সিরিজ আয়োজন না করতে চায়, বাংলাদেশ তখন কী করবে? বিসিবির ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের প্রধান আকরাম খান বলছেন, সিদ্ধান্তটি সবাই মিলেই নেওয়া হবে, ‘আমাদের কাছে নিরাপত্তা সব সময়ই প্রাধান্য পাবে। আমরা কোথায় খেলব, সিদ্ধান্তটা পুরোপুরি হয়নি। কোথায় খেলব, এটা ঠিক করবে পিসিবি। পরবর্তী বোর্ড সভায় সম্মিলিত সিদ্ধান্ত আর সরকারের সবুজ সংকেতের ওপর নির্ভর করছে এই সফর।’

 

আগামী ১০-১৫ দিনের মধ্যে পাকিস্তান সফরে যাওয়া না যাওয়ার বিষয়টি চূড়ান্ত করবে বাংলাদেশ। শেষ পর্যন্ত বাংলাদেশ যদি পাকিস্তানে যেতে না রাজি হয় এবং পিসিবিও যদি নিজেদের ঘরের মাঠে ম্যাচ আয়োজনের সিদ্ধান্তে অনড় থাকে, টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের পয়েন্ট খোয়ানোর আশঙ্কা আছে বাংলাদেশের। আকরাম অবশ্য বলছেন, ‘আমরা সবকিছু বিবেচনায় নিয়ে এগোচ্ছি।’

 

পাকিস্তান সফর অনিশ্চিত থাকলেও আগামী মাসে ভারত সফর নিয়ে ভীষণ ‘সিরিয়াস’ বিসিবি। প্রথমবারের মতো পূর্ণাঙ্গ সফরে ভারত যাচ্ছে বাংলাদেশ। সফরটা কঠিন হবে বলেই আকরাম সর্বোচ্চ প্রস্তুতির কথা জানালেন, ‘ভারত সফরটা আমাদের কাছে অনেক গুরুত্বপূর্ণ, তারা এমনিতেই শক্তিশালী দল। নিজেদের মাটিতে তো আরও শক্তিশালী। এটা আমাদের জন্য কঠিন একটা সিরিজ হবে। এই সফর দিয়ে আমাদের টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ শুরু হবে। এসব মাথায় রেখে বিসিবির দুটি দল কদিন আগে খেলে এল। এখন জাতীয় লিগ শুরু হবে। দুটি রাউন্ড খেলার পর ২৫ অক্টোবর জাতীয় দলের ক্যাম্প শুরু হবে।’

Comment As:

Comment (0)